শরীয়তপুরে “ইসলামের খেদমতে বঙ্গবন্ধুর অবদান, অগ্রণী ভূমিকায় শেখ হাসিনা শীর্ষক” আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

33

শরীয়তপুরে “ইসলামের খেদমতে বঙ্গবন্ধুর অবদান, অগ্রণী ভূমিকায় শেখ হাসিনা শীর্ষক” আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত।

- Advertisement -

মুহাঃআবু সুফিয়ান আল মাহমুদ, শরীয়তপুর থেকে।

২২ মার্চ সোমবার দুপুর ১২টায় শরীয়তপুর পৌরসভা অডিটোরিয়ামে মুজিববর্ষে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী ও ইসলামিক ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এঁর জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে শরীয়তপুরে “ইসলামের খেদমতে বঙ্গবন্ধুর অবদান, অগ্রণী ভূমিকায় শেখ হাসিনা শীর্ষক” আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়।
অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মোঃ শামীম হোসেন এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক মোঃ পারভেজ হাসান। বিশেষ অতিথি ছিলেন পুলিশ সুপার এস.এম. আশরাফুজ্জামান, ইসলামিক ফাউন্ডেশন শরীয়তপুরের উপপরিচালক আবদুর রাজ্জাক রনি। এসময় উপস্থিত ছিলেন বিভিন্ন সরকারী-বেসরকারী প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের সদস্যবৃন্দ, প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ ও অন্যান্য ব্যক্তিবর্গ।
প্রধান অতিথি জেলা প্রশাসক মোঃ পারভেজ হাসান বলেন, স্বাধীন বাংলাদেশে ইসলামের খেদমতে বঙ্গবন্ধুর মত এত কাজ আর কোনো রাষ্ট্রনায়ক করেননি। তিনি ইসলামের প্রচার-প্রসারে ইসলামিক ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠা করেছেন। টঙ্গির তুরাগ তীরে বিশ্ব ইজতেমার জন্য জায়গা বরাদ্দ দিয়েছেন। কাকরাইল মসজিদ সম্প্রসারণের জন্য জায়গা দিয়েছেন। মদ, জুয়া, হাউজি ও ঘৌড়দৌড় নিষিদ্ধ করেছেন। ইসলাম প্রচার ও প্রসারে বঙ্গবন্ধু সবচেয়ে বেশি অবদান রেখেছেন এবং তারই ধারাবাহিকতায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ইসলামের জন্য কাজ করে যাচ্ছেন। শেখ হাসিনার আমলে সারা দেশে যে পরিমাণ মসজিদ মাদ্রাসা স্থাপিত হয়েছে তা অন্য কোন সরকারের আমলে হয়নি।

- Advertisement -